কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ কি কি ও করণীয়

কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ

4

দিন যতই যাচ্ছে আমরা ততই ইন্টারনেট তথা কম্পিউটারের উপর নির্ভর হয়ে উঠছি। এই কম্পিউটার ব্যবহারে আমরা প্রতিনিয়ত নানা রকম সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছি। তার মধ্যে প্রধান হচ্ছে কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ। এই রকম অনেক সমস্যাই হয়ে থাকে যখন আমরা কোন গুরুত্বপূর্ণ কাজ করতে থাকি। ঠিক তখনই কম্পিউটার হ্যাং হয়ে যায়। যেমন, প্রোগামিং, গ্রাফিক্স ডিজাইন, ওয়েব ডিজাইন,সিপিএ মার্কেটিং, ডিজিটাল মার্কেটিং এবং কেউ কেউ আবার ফ্রিল্যান্সিং এর কাজ করে থাকে। তখন যদি কম্পিউটার হ্যাং হয়ে যায় তাহলে অনেকের কাছে বিরক্তিকর লাগে। কম্পিউটার ব্যবহার করার সময় হ্যাং বা স্লো কাজ করলে কম্পিউটার চালানোর মজাটাই নষ্ট হয়ে যায়। তাই আজ আমি আপনাদের জানাতে এসেছি, কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ কি কি, কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় কি এবং কিভাবে কম্পিউটার হ্যাং সমাধান করবেন সে সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা নিয়ে।

কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ কি কি

আমরা দৈনন্দিন কাজের জন্য বিভিন্ন ধরনের ল্যাপটপ বা কম্পিউটার ব্যবহার করে থাকি। যখনই কাজ করতে থাকি ঠিক তখনই কম্পিউটার হ্যাং হয়ে যায়। আর কাজ করার মানসিকতা নষ্ট হয়ে যায়। তখন কম্পিউটার আর কমান্ড মানে না রেসপন্সও করে না। এই রকম সমস্যার সম্মুখীন কম্পিউটার ব্যবহারকারীরা কমবেশি হয়ে থাকে। নিচে কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ গুলো কি কি তা তুলে ধরা হলো।

  • কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ, র‍্যামে অতিরিক্ত পরিমানে চাপ প্রয়োগ করলে হ্যাং হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।
  • কম্পিউটার Local disk এ পর্যাপ্ত পরিমানে স্পেস না রাখলে হ্যাং হতে পারে।
  • অনেক প্রগ্রাম এক সাথে চালু করলে কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ সবচেয়ে বেশি। কারন, কম্পিউটার ধারণ ক্ষমতার বেশি লোড নিতে পারে না।
  • কম্পিউটার হ্যাং হয়, দূর্বল ও নিম্ন মানের প্রসেসর ব্যবহার করলে।
  • প্রসেসর গরম বা ওভার হিট হলে হ্যাং হতে পারে।
  • অতিরিক্ত অপ্রয়োজনীয় সফটওয়্যার কম্পিউটারে ইনস্টল করে রাখা কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ।
  • কম্পিউটারে ভাইরাস থাকলে বা সংক্রমন করলে হ্যাং হতে পারে।
  • কম্পিউটারে অপারেটিং সিস্টেম ও হার্ডওয়্যার আপডেট না করলে।
  • অপারেটিং সিস্টেম ফাইল ডিলেট হলে কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ হয়ে পারে।
  • কম্পিউটারের ধারণ ক্ষমতার চেয়ে অধিক গ্রাফিক্স সম্পন্ন গেম ও সফটওয়্যার চালালে কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ বেশি থাকে।
  • ভারী এপ্লিকেশন চালানে কম্পিউটারে হ্যাং হতে পারে।
  • কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ, দীর্ঘ সময় Restart বা Reboot ছাড়াই চালালে।
  • কম্পিউটারের হার্ডডিক্স ও অন্যান্য হার্ডওয়্যারের সাথে ত্রুটিপূর্ণ সংযোগ থাকলে।
  • ধারন ক্ষমতার থেকে মাত্রারিক্ত কমান্ড করা।
  • এমন কি ব্রাউজার ভারি হয়ে গেলে কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ থাকে।

এগুলোর কারনেই মূলত কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ থাকে সবচেয়ে বেশি। আর এই সব কারণে কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় কি এবং তা থেকে সমাধানের উপায় কি নিচে তা আলোচনা করা হলো।

কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ কি কি ও করণীয়

কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় কি কি

এখন আমরা জেনে নেব কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় কি কি সে সম্পর্কে পূণার্গ ধারণা-

রিস্টার্ট

কম্পিউটার হ্যাং হলে প্রথমে রিস্টার্ট মারতে হবে। কেননা, রিস্টার্ট মারলে কম্পিউটারের অনেক সমস্যা অটোমেটিক ঠিক হয়ে যায়। তাই কোন কিছু করার আগে আপনি কম্পিউটার রিস্টার্ট করে নিবেন।

নেটওয়ার্ক সমস্যা

নেটওয়ার্কের কারনে কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় হচ্ছে, আপনার যদি নেটওয়ার্ক কেবল বা রাউটার থাকে তা কিছুক্ষনের জন্য বন্ধ করে রাখতে হবে। যদি সম্ভব হয় রিস্টার্ট মারতে হবে। তাহলে হয়ত বা নেটওয়ার্ক জনিত সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে।

অপ্রয়োজনীয় সফটওয়্যার

আপনার কম্পিউটারে যদি অপ্রয়োজনীর সফটওয়্যার থাকে। তাহলে তা কনটোল প্যানেল থেকে রিমুভ করে ফেলতে হবে। তার কারন অনেক সময় সফটওয়্যার অটোমেটিক ইনস্টল হয়ে থাকে। এর কারনে কম্পিউটারের উইন্ডোজ ভারি হয়ে যায়। যা কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ।

প্রিন্টারের কারনে হ্যাং

প্রিন্টারের কারনে কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় হলো, দ্রত প্রিন্টার টি বন্ধ করে আবার চালু করা। এতে যদি কোন সমস্যা থাকে তা সহজে সমাধান হয়ে যাবে।

ইউএসবি সিকিউরিটি ব্যবহার

কম্পিউটারে ইউএসবি সিকিউরিটি ব্যবহার করতে হবে। বাহিরের কোন প্রেনড্রাইভ কম্পিউটারে লাগানো যাবে না। যার কারন হচ্ছে বিভিন্ন জনের কম্পিউটারে ভাইরাস থাকে। আর এই ভাইরাসের কারনে কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় হচ্ছে ইউএসবি সিকিউরিটি ব্যবহার করা। তাহলে আপনার কম্পিউটারে ভাইরাস প্রবেশ করতে পারবে না।

র‍্যাম সমস্যার কারনে হ্যাং

র‍্যাম সমস্যা কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ। কম্পিউটার হ্যাং করে র‍্যাম লুজ হলে, খারাপ হলে, মেমরি কম হলে। আর এই সমস্যার জন্য কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় হচ্ছে, র‍্যাম টি খুলে কানেক্টর পয়েন্ট গুলো ভালভাবে মুছে লাগিয়ে দিলে সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে।

কম্পিউটার হার্ডডিস্কের কারনে হ্যাং

কম্পিউটারের হার্ডডিস্ক পুরনো হওয়ার কারনে প্রোগ্রাম ভালো ভাবে কাজ করে না। যার জন্য কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। এর জন্য কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় হার্ডডিস্ক দ্রত পরিবর্তন করতে হবে।

কম্পিউটার প্রোগ্রাম

কম্পিউটারে একাধিক প্রোগ্রাম চালু রাখা যাবে না। আর একাধিক প্রোগ্রাম চালু রাখলে কম্পিউটার হ্যাং করার সম্ভাবনা বেশি থাকে। আর যদি র‍্যাম কম থাকে তাহলে কম্পিউটার হ্যাং হবেই। আর এই প্রোগ্রামের কারনে কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় হলো, টাস্ক ম্যানেজার থেকে দেখে নিতে হবে কত গুলো প্রোগ্রাম চালু আছে। যদি প্রয়োজনের তুলনায় বেশি থাকে তাহলে তা বন্ধ করে রাখতে হবে।

কম্পিউটারে সফটওয়্যার ডাউনলোড

সফটওয়্যার ডাউনলোড করার আগে নিশ্চিত হতে হবে সেটি সফটওয়্যার কি না। আর অজানা সফটওয়্যার ডাউনলোড বা ইনস্টল করলে কম্পিউটার ভারি হয়ে যায়। যার কারনে কম্পিউটার হ্যাং হয়ে যায়।

বন্ধুরা আপনাদের যদি, কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ কি কি, কম্পিউটার হ্যাং হলে করণীয় কি সে সম্পর্কে কোন কিছু জানার প্রয়োজন পড়ে তাহলে কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন। উপরে উল্লেখিত কম্পিউটার হ্যাং হওয়ার কারণ গুলো মেনে কম্পিউটার ব্যবহার করলে। আপনার কম্পিউটার সুরক্ষিত থাকবে কখনো হ্যাং হবে না।

আরো পড়তে পারেন, ল্যাপটপ গরম হওয়ার কারণ কি ও সমাধান। ধন্যবাদ

Leave A Reply

Your email address will not be published.